স্বস্তিকা মুখার্জি




অনলাইন ডেস্কঃ ভারতীয় বাংলা সিনেমার আলোচিত অভিনেত্রী স্বস্তিকা মুখার্জি। তার আরেক পরিচয় তিনি অভিনেতা সন্তু মুখার্জির কন্যা। বাবার কারণে লাইট-ক্যামেরা-অ্যাকশন শুনেই বেড়ে উঠেছেন তিনি। মাত্র ২১ বছর বয়সে অভিনয়ে তার অভিষেক ঘটে। তারপর অসংখ্য সিনেমা উপহার দিয়েছেন এই নায়িকা।

২০১৪ সালে মুক্তি পায় স্বস্তিকা মুখার্জি অভিনীত ‘টেক ওয়ান’ সিনেমা। সিনেমাটিতে একটি অন্তরঙ্গ দৃশ্য ছিল। এ দৃশ্যের শুটিংয়ের ক্লিপ নেটদুনিয়ায় ছড়িয়ে পড়েছিল। মানুষ ধরে নিয়েছিল, এটি স্বস্তিকার বাস্তব জীবনের ভিডিও ক্লিপ। এ নিয়ে দারুণ সমালোচনার মুখে পড়েছিলেন স্বস্তিকা। পরিবার থেকে পাড়াপড়শিরাও তাকে কটূ কথা শুনিয়েছে।

স্বস্তিকা মুখার্জি

পুরোনো সেই অন্তরঙ্গ মুহূর্তের ভিডিও ক্লিপ নিয়ে মুখ খুলেছেন স্বস্তিকা। এ অভিনেত্রী ভারতীয় একটি সংবাদমাধ্যমে বলেন—‘‘আমার মনে আছে ‘টেক ওয়ান’ নামে একটা সিনেমায় অভিনয় করছিলাম। একজন নায়িকার জীবন নিয়ে ছিল সেই সিনেমার গল্প। যার একটি অন্তরঙ্গ দৃশ্যের ক্লিপ ফাঁস হয়ে যায় এবং সেটি এমএমএস স্ক্যান্ডাল হিসেবে ছড়িয়ে পড়ে। একজন নায়িকার জীবন তার ক্যারিয়ার সবকিছু নিয়ে তৈরি হচ্ছিল এই সিনেমা। তাই চরিত্রের প্রয়োজনে আমাকে মদ্যপ হতে হয়েছিল। কিন্তু পর্দার এই চরিত্রকে সকলেই সত্য হিসেবে ধরে নিয়েছিলেন।’’

আত্মীয়-স্বজন ও পাড়াপড়শিদের নিন্দার কারণে দারুণ চাপে পড়েছিল স্বস্তিকার বাবা-মা। তা জানিয়ে এই অভিনেত্রী বলেন, ‘‘বেশিরভাগ মানুষ আমার বাবা-মাকে ফোন করে বলতো যে, স্বস্তিকা এসব কি করছে! এ ধরনের ঘটনা কেউ ঘটায়? কেউ কেউ বলেছিল, পরিবারে যত্ন হচ্ছে না বলেই স্বস্তিকা এসব কাজ করতে পারছে। এক পর্যায়ে মা বিরক্ত হয়ে যান। রেগে গিয়ে বলেছিলেন, ‘ইউ’ সার্টিফিকেট যুক্ত সিনেমা করতে পারবে না। বাচ্চাদের জন্য সিনেমা করবে। মাতাল চরিত্রে অভিনয় করবে কেন?’’

স্বস্তিকা মুখার্জি

১৯৯৮ সালে বিখ্যাত রবীন্দ্র সংগীতশিল্পী সাগর সেনের ছেলে প্রমিত সেনকে বিয়ে করেন স্বস্তিকা। ২০০০ সালে চলচ্চিত্রে নাম লেখান তিনি। আর এরই মাঝে এক কন্যার মা হন স্বস্তিকা। মা হওয়ার পর চলচ্চিত্রে নায়িকা হিসেবে প্রতিষ্ঠা পাওয়া কঠিন! এজন্য মা হওয়ার খবরও অনেকে গোপন রাখতে বলেছিলেন স্বস্তিকাকে। এ বিষয়ে এই অভিনেত্রী বলেন, ‘আমি যখন কাজ শুরু করলাম, তখন সবাই বলেছিলেন আমার মা হওয়ার কথা যেন কেউ জানতে না পারে। তাহলেই বিপদ। কারণ কেউ আর নায়িকা হিসেবে আমাকে পছন্দ করবে না, আমার চাহিদাও থাকবে না।’

২০০৪ সালে প্রমিত সেনের সঙ্গে বিবাহবিচ্ছেদ ঘটে স্বস্তিকার। তারপর কন্যাকে সিঙ্গেল মাদার হিসেবে বড় করে তুলছেন তিনি। বিয়েবিচ্ছেদের পর অনেকের সঙ্গে স্বস্তিকার প্রেমের গুঞ্জন চাউর হয়েছে, তবে আর দ্বিতীয় বিয়ে করেননি এই নায়িকা।

Bangladeshpost24.com        

Previous article১০ টাকার টিকিট কেটে চোখ দেখালেন প্রধানমন্ত্রী
Next articleমাঙ্কিপক্সের নতুন নাম এমপক্স: ডব্লিউএইচও