বাংলায় সংবাদ 🔊

অনলাইন ডেস্কঃ সাফজয়ী নারী দলের দেশে ফেরাকে কেন্দ্র করে উচ্ছ্বাসে মেতেছিল গোটা বাংলাদেশ। তবে তার শেষটা হলো চরম অপ্রীতিকর ঘটনা দিয়ে। যেই সাবিনা, সানজিদা, কৃষ্ণারা দেশবাসীকে এনে দিলেন অধরা ট্রফি, দেশে ফেরা মাত্র তারাই শিকার হলেন চুরির।

বুধবার (২১শে সেপ্টেম্বর) হযরত শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে বাংলাদেশ জাতীয় নারী ফুটবল দলের অবতরণের পর এ ঘটনা ঘটে বলে জানা গেছে।

সাফ চ্যাম্পিয়নশিপের শিরোপা নিয়ে বীরদর্পে দেশে ফেরা নারী ফুটবলারদের ব্যাগ থেকে খোয়া গেছে টাকা ও মূল্যবান জিনিসপত্র। সেই সঙ্গে বেশ কয়েকজনের লাগেজের তালা ভাঙা অবস্থায় পাওয়া গেছে বলেও অভিযোগ করেছেন দলের একজন খেলোয়াড়।

২ খেলোয়াড়ের লাগেজ থেকে ডলার হারানোর অভিযোগ উঠেছে। বিমানবন্দর থেকে বাফুফে ভবনে এসে ব্যাগ খুলে তারা ডলার পাননি।

বাংলাদেশ জাতীয় নারী দলের কোচ গোলাম রব্বানী ছোটন বলেন, ‘কৃষ্ণা ও শামসুন্নাহারের ডলার হারিয়েছে বলে জানিয়েছে। কৃষ্ণার ৯০০ ডলার ও বাংলাদেশি ৫০ হাজার টাকা এবং শামসুন্নাহারের ৪০০ ডলার হারিয়েছে। তাদের ধারণা বাংলাদেশ বিমানবন্দর লাগেজ বেল্ট থেকে এটি হয়েছে।’

এত পরিমাণ অর্থ খোয়া গেলেও এখনো বিমানবন্দর কর্তৃপক্ষ অথবা বাংলাদেশ বিমান এয়ারলাইনসকে কোনো অভিযোগ জানাননি ক্ষতিগ্রস্ত ফুটবলাররা। তবে আজ দুপুরের দিকে ফেডারেশন থেকে বিমানবন্দরে যোগাযোগ করা হতে পারে।

কৃষ্ণা ও শামসুন্নাহার দুই জনই সিনিয়র ফুটবলার। গত কয়েক বছরে তারা অনেক বার বিদেশে ভ্রমণ করেছেন। বাংলাদেশ বিমানবন্দরে এ রকম চুরির ঘটনা নতুন নয়। যদিও কৃষ্ণা ও শামসুন্নাহার উভয়ে তালা মেরে রেখেছিলেন তাদের লাগেজে।

জাতীয় দলের কোচ গোলাম রব্বানী ছোটন বলেছেন, ‘রাতে ওদের ডলার ও অর্থ চুরির বিষয়টি জানা গেছে। এটা বেশ দুঃখজনক ঘটনা।’

 

Bangladeshpost24.com

Previous articleলেওয়ান্ডভস্কির হাত ধরেই বিশ্বকাপে ইউক্রেন
Next articleডোনাল্ড ট্রাম্প ও তার তিন সন্তানের বিরুদ্ধে প্রতারণার মামলা