অনলাইন ডেস্কঃ আওয়ামী লীগের ২০ নেতাকর্মীদের বিরুদ্ধে বিএনপির করা মামলার আবেদন খারিজ করে দিয়েছেন আদালত।
মঙ্গলবার (২০শে সেপ্টেম্বর) ঢাকার অ্যাডিশনাল চিফ মেট্রোপলিটন ম্যাজিস্ট্রেট তোফাজ্জল হোসেনের আদালত এ আদেশ দেন।
বিএনপির আইনজীবী মাসুদ আহমেদ তালুকদার এ তথ্য নিশ্চিত করেন। তিনি বলেন, মামলাটি আমলে গ্রহণ করার উপাদান না থাকায় বিচারক খারিজের আদেশ দেন।

এদিন সকালে জাতীয়তাবাদী আইনজীবী ফোরামের সেক্রেটারি অ্যাডভোকেট ওমর ফারুক ফারুকী সংশ্লিষ্ট আদালতে বিএনপি ঢাকা মহানগর উত্তরের নেতাকর্মীদের শান্তিপূর্ণভাবে সমাবেশে হামলার অভিযোগে মামলার আবেদন করেন।

মামলায় আরও যাদের আসামি করার আবেদন করা হয় তারা হলেন-আওয়ামী লীগের সংসদ সদস্য আগা খা মিন্টু, কেন্দ্রীয় যুবলীগের সাধারণ সম্পাদক মাইনুল হোসেন খান নিখিল, ঢাকার মহানগর উত্তর আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এম এ মান্নান কচি, ঢাকা মহানগর উত্তর যুব লীগের সাধারণ সম্পাদক ইসমাইল হোসেন, ঢাকার মহানগর উত্তর যুবলীগের সাংগঠনিক সম্পাদক তাইজুল ইসলাম চৌধুরী বাপ্পি, ঢাকার মহানগর উত্তর স্বেচ্ছাসেবক লীগ সভাপতি ইসহাক মিয়া, স্বেচ্ছাসেবক লীগের কেন্দ্রীয় সিনিয়র যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মোবাশ্বের চৌধুরী, রূপনগর থানা আওয়ামী লীগের সভাপতি হাজী রজ্জব হোসেন, সিনিয়র সহসভাপতি হাজী তোফাজ্জল হোসেন টেনু, রুপনগর থানা যুবলীগের সভাপতি জাকির হোসেন, সাধারণ সম্পাদক মো. খোকন, আট নম্বর ওয়ার্ড আওয়ামী লীগ নেতা কেশেম মোল্লা, সাবেক মহিলা সংসদ সদস্য তুহিন, মিরপুর থানা আওয়ামী লীগ নেতা শেখ মান্নান, মিরপুর থানা আওয়ামী লীগের সিনিয়র সহসভাপতি আনোয়ার হোসেন লিটু, সাধারণ সম্পাদক সালা উদ্দিন রবিন, ঢাকা মহানগর উত্তর ছাত্রলীগের সভাপতি মো. ইব্রাহিম ও ঢাকা মহানগর উত্তর আওয়ামী লীগের কোষাধ‌্যক্ষ সালাম চৌধুরী।

এছাড়া মামলার আবেদনে ৪০০/৫০০ জন অজ্ঞাত আওয়ামী লীগ নেতাকর্মী আসামির কথা উল্লেখ করা হয়।

 

Bangladeshpost24.com

Previous articleরুপগঞ্জে মহড়া দেয়া অস্ত্রধারীদের খুঁজছে পুলিশ
Next articleখালেদা জিয়ার ১১ মামলায় অভিযোগ গঠনের শুনানি পেছাল